ফ্রিল্যান্সিং কিভাবে শিখবো (২০২১ আপডেট)

আমরা প্রায়ই দেখি কেউ কেউ  শুধু একটি কম্পিউটার ও ইন্টারনেট ব্যবহার করে কাজ করছে, এবং এইটাই তার ক্যারিয়ার। অনেকে হয়তো এই কাজের নাম জানি যে এটা ফ্রিল্যান্সিং। তবে ফ্রিল্যান্সিং কিভাবে শিখবো, ফ্রিল্যান্সিং কি এগুলো আমাদের অজানা থাকে। তাই ফ্রিল্যান্সিং সম্পর্কে আজ আমার এ টু জেট টপিক কভার করবো, আশা করি পুরো পোষ্ট পড়লে আপনি ফ্রিল্যান্সিং ক্যারিয়ার সম্পর্কে একটা ক্লিয়ার আইডিয়া পাবেন। চলুন শুরু করা যাক – 

ফ্রিল্যান্সিং 

ফ্রিল্যান্সিং শব্দের ব্যবহার বর্তমান সবচেয়ে বেশি হলেও, এই শব্দের প্রথম ব্যবহার দেখতে পাওয়া যায়া ১৮১৯ সালে। ফ্রিল্যান্সিং শব্দটির অর্থ মুক্তপেশা। অর্থাৎ এটি এমন একটি পেশা যেখানে আপনি অনেকটা মুক্ত ভাবে কাজ করতে পারবেন। এখানে মুক্ত মানে বোঝায় আপনি যেকোনো স্থানে, যেকোনো অবস্থায়, যেকোনো সময় কাজটি করতে পারবেন। এবং কাজটি আপনি করবেন কিনা সেটাও আপনার হাতে, অর্থাৎ আপনি চাইলে কোন প্রজেক্ট নাও নিতে পারেন। এখানে আপনিই আপনার বস। যেটা প্রচলিত চাকরি ব্যবস্থা থেকে সম্পূর্ণ আলাদা। 

ফ্রিল্যান্সিং কি – Freelancing কি

আপনি যদি মুক্তপেশাজীবী হিসেবে কোন কাজ করেন সেটাই ফ্রিল্যান্সিং(Freelancing)। আর ফ্রিল্যান্সিং বলতে যে মুক্তপেশাকে বুঝানো হয় তা কেবল অনলাইনে যে কাজ গুলো করা হয়, তার মাধ্যমেই সম্ভব। 

ফ্রিল্যান্সিং কাকে বলে

মুক্তপেশাজীবী হিসেবে কাজ করলেই তাকে ফ্রিল্যান্সিং বলে। তবে আপনাকে মনে রাখতে হবে ফ্রিল্যান্সিং মানে ক্লিক করে হাজার হাজার ডলার ইনকাম, এরকম কিছু নয়। ভিডিও এড দেখে, বা এমএলএম (MLM) কোম্পানির মাধ্যমে টাকা ইনভেস্ট করে ইনকাম করাও ফ্রিল্যান্সিং এর মধ্যে পড়েনা। আপনার মনে রাখা উচিত ফ্রিল্যান্সিং একটি কাজ, এবং এই কাজ টা করেই আপনাকে ইনকাম করতে হবে। কোন ক্লিক বা ইনভেস্ট করে ফ্রিল্যান্সিং করবেন, এরকম টা ভাবলে আপনি প্রতারিত হবেন।

ফ্রিল্যান্সিং কিভাবে শিখবো – কিভাবে ফ্রিল্যান্সিং শিখবো

ফ্রিল্যান্সিং এখন এতটাই জনপ্রিয় যে যুবসমাজের একটা বিশাল অংশ ফ্রিল্যান্সিং পেশার দিকে ঝুকছে। তবে দুর্ভাগ্যজনক হলেও সত্যি, ফ্রিল্যান্সিং শিখতে চাওয়া এই মানুষ গুলোর বেশির ভাগ লোকই জানেনা কিভাবে ফ্রিল্যান্সিং শিখবো। 

পোষ্টের উপর অংশ থেকে আশা করি ফ্রিল্যান্সিং কি এই জিনিসটা আপনাদের ক্লিয়ার হয়ে গেছে। তাহলে ফ্রিল্যান্সিং যে একটা কাজ, এবং কাজ করেই আপনাকে ইনকাম করতে হবে এটাও বুঝে যাওয়ার কথা। তবে মনে রাখার বিষয় ফ্রিল্যান্সিং কাজ মানে ক্লিক করা, এড দেখা, ভিডিও দেখা, বা কোথাও টাকা ইনভেস্ট করলাম এরকম কোন কাজ নয়। 

বাজারে প্রচলিত অফলাইন কাজ গুলো অনলাইনে স্বাধীনভাবে করাই হচ্ছে ফ্রিল্যান্সিং ।

এবার আসল কথায় ফেরা যাক, ফ্রিল্যান্সিং কিভাবে শিখবো ?

ফ্রিল্যান্সিং করতে চাইলে, আপনার জানা কাজ গুলো অনলাইনে কীভাবে করা যায় সেই সম্পর্কে আইডিয়া নিতে হবে। আর অনলাইনে করা যায় এরকম কোন কাজ বা স্কিল যদি আপনার না থাকে তাহলে আপনাকে একটা কাজ শিখতে হবে। এভাবেই আপনি আপনার ফ্রিল্যান্সিং শেখা শুরু করতে পারেন। 

ফ্রিল্যান্সিং এর কাজ সমূহ

যেসব কাজ দিয়ে ফ্রিল্যান্সিং করা যায় এরকম অজস্র কাজ রয়েছে। তবে ফ্রিল্যান্সিং এ ভাল কিছু করার জন্য, কোন কাজ অল্প জানলে বিপদ। তাই কাজ গুলোর মধ্যে থেকে আপনাকে বেছে নিতে হবে আপনার পছন্দের কাজ এবং লেগে পড়তে হবে প্রয়োজনীয় দক্ষতা অর্জনে। 

ফ্রিল্যান্সিং এ কি কি কাজ করা যায় ?

১. গ্রাফিক্স ডিজাইন

২. ভিডিও এডিটিং

২. ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভলপমেন্ট

৩. ডিজিটাল মার্কেটিং 

৪. নেটওয়ার্কিং 

৫. অ্যাপ ডেভলপমেন্ট

এছাড়াও ফ্রিল্যান্সিং সেক্টরে অনেক কাজ রয়েছে। এখানে শুধু মেইন কাজ গুলো তে ফোকাস করা হয়েছে। দাহরণস্বরূপ আপনি ডিজিটাল মার্কেটিং এর বিভিন্ন সেক্টর যেমন এসইও , সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং, অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং নিয়ে কাজ করতে পারেন। এই জন্য আমরা মেইন টপিকে ফোকাস করেছি।

ফ্রিল্যান্সিং কাজ করার জন্য কিসের প্রয়োজন

ফ্রিল্যান্সিং এ কাজ করার জন্য আমাদের সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন স্কিল। অর্থাৎ আমাদের যেকোনো একটি বিষয়ে পূর্ণাঙ্গ এবং প্রফেশনালি দক্ষ বা স্কিল হতে হবে। সহজ ভাষায় কাজ টা খুব ভালভাবে জানার প্রয়োজন সবচেয়ে বেশি।

আর বিভিন্ন কাজের জন্য বিভিন্ন ধরনের ডিভাইস প্রয়োজন হয়, তবে আমার মতে ফ্রিল্যান্সিং এর জন্য কম্পিউটার অবশ্যই লাগবে। কাজের ভিন্নতা অনুসারে বিভিন্ন মানের/দামের কম্পিউটার লাগতে পারে। যেমন- গ্রাফিক্স এবং ভিডিও এডিটিং এর জন্য উচ্চ গ্রাফিক্স ক্ষমতা সম্পন্ন কম্পিউটার লাগলেও, ডিজিটাল মার্কেটিং ক্ষেত্রে এমনটি বাধ্যতামূলক না। তাই আপনার কাজ অনুসারে যেমন কম্পিউটার দরকার ঠিক তেমন একটি কম্পিউটার ফ্রিল্যান্সিং এ প্রয়োজন। 

এরপর আমাদের ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসে কীভাবে কাজ করা হয়, এটা সম্পর্কে আইডিয়া নিতে হবে। যখন আপনি ফ্রিল্যান্সিং প্রসেস সম্পর্কে জেনে যাবেন, এরপর আপনি ফ্রিল্যান্সিং শুরু করতে পারেন। 

ফ্রিল্যান্সিং সাইট

ফ্রিল্যান্সিং করা যায় এরকম ওয়েবসাইট এর অভাব নেই বললেই চলে। তবে নতুন হিসেবে সঠিক মার্কেটপ্লেস চয়েজ করা খুবি জরুরি। এছাড়া ফ্রিল্যান্সিং সাইট চয়েজ করার ক্ষেত্রে স্কিল ও একটা বিষয়। এখানে আমরা পপুলার কিছু ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস সাইট লিংক দিলাম –

আপওয়ার্ক
https://www.upwork.com/

ফাইভার
https://www.fiverr.com/

ফ্রিল্যান্সার
https://www.freelancer.com/

পিপল পার আওয়ার
https://www.peopleperhour.com/

এসইও ক্লার্ক
https://www.seoclerk.com/

ফ্রিল্যান্সিং একাউন্ট

যেকোনো মার্কেটপ্লেসে একাউন্ট খোলার পর-ই সেই একাউন্ট ই হবে আপনার ঐ মার্কেটের জন্য ফ্রিল্যান্সিং একাউন্ট।

ফ্রিল্যান্সিং একাউন্ট কিভাবে খুলবো

ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেস গুলোতে একাউন্ট গুলোকেই অনেকে ফ্রিল্যান্সিং একাউন্ট বলে থাকে। ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসে এ একাউন্ট খোলা সহজ হলেও, এখানে খোলার জন্য কিছু নিয়ম না মানলে কাজ পেতে সমস্যা হতে পারে। সাধারনত একটা ইমেইল আইডি থাকলেই আপনি একাউন্ট খুলতে পারবেন। ইমেইল, নাম, জন্ম তারিখ এগুলো দিয়ে একাউন্ট খোলা হলে, এরপর আপনাকে আপনার কাজ অনুসারে প্রোফাইল সাজাতে হবে। প্রয়োজনীয় ডেসক্রিপশন, প্রোফাইল পিকচার, স্কিল, পোর্টফলিও লিংক দিয়ে প্রোফাইল সঠিকভাবে সাজালে কাজ পেতে সুবিধা হবে। এভাবেই ফ্রিল্যান্সিং একাউন্ট খোলা হয়ে থাকে।

ফ্রিল্যান্সিং আয়

ফ্রিল্যান্সিং থেকে আপনার যে আয় হবে, সেটাই হবে ফ্রিল্যান্সিং আয়। প্রথমদিকে বেশিরভাগ ফ্রিল্যান্সার এর ক্ষেত্রে আয় কম হলেও, ধিরে ধিরে ফ্রিল্যান্সিং আয় বৃদ্ধি পায়। 

ফ্রিল্যান্সিং ক্যারিয়ার

প্রথমদিকে ফ্রিল্যান্সিং কে মানুষ পার্ট টাইম ক্যারিয়ার হিসেবে নিলেও, এখন অনেকেই ফ্রিল্যান্সিং ক্যারিয়ার কে ফুল টাইম ক্যারিয়ার হিসেবে নিচ্ছে। আকর্ষণীয় ক্যারিয়ার গুলোর মধ্যে ফ্রিল্যান্সিং ক্যারিয়ার বর্তমানে সবচেয়ে বেশি মানুষ ঝুকছে। কারন এই সেক্টরে এখনো যথেষ্ট দক্ষ মানুষের অভাব রয়েছে। তাই ফ্রিল্যান্সিং ক্যারিয়ার হিসেবে একটি ভাল সম্ভবনার জায়গা।

সরকারি ফ্রিল্যান্সিং কোর্স

ফ্রিল্যান্সিং সেক্টরে দক্ষ ফ্রিল্যান্সার তৈরি করার ক্ষেত্রে বাংলাদেশ সরকার নানা সরকারি ফ্রিল্যান্সিং কোর্স অনেকসময় চালু করেছে। এর মধ্যে লার্নিং এন্ড আর্নিং ডেভেলপমেন্ট প্রজেক্টের আন্ডারে অনেকেই ট্রেইনিং করে ফ্রিল্যান্সিং সেক্টরে ভাল কাজ করছে। 

Spread the love

1 thought on “ফ্রিল্যান্সিং কিভাবে শিখবো (২০২১ আপডেট)”

  1. আপনার লেখাগুলি বরাবরই আমার পড়ার তালিকায় শীর্ষে কারণ অন্যদের মতো আপনি কোথাও থেকে কপি কাট করে দেন না সম্পূর্ণ নতুনভাবে জিনিসটা বুঝিয়ে উপস্থাপন করেন

    Reply

Leave a Comment