সহবাসের কতদিন পর গর্ভবতী হয় (বিশেষজ্ঞদের মতামত)

গর্ভবতী হওয়া বা মাতৃত্বের স্বাদ পাওয়া সকল নারীর জীবনেই এক পরম পাওয়া। প্রথম সন্তান নেওয়ার ক্ষেত্রে দম্পতির মনে তাই প্রশ্নের শেষ নেই। যখন সন্তান নেওয়ার জন্য সহবাস করা হয়, তখনই মনে প্রশ্ন আশে সহবাসের কতদিন পর গর্ভবতী হয় ? চলুন আজ এই প্রশ্নের উত্তর খুঁজবো।

সহবাসের কতদিন পর গর্ভবতী হয়

সহবাসের পর প্রায় ১০ দিন লাগে গর্ভবতী হতে। সহবাসের পর ডিম্বাণু এবং শুক্রাণু মিলিত হয়ে নিষিক্ত ডিম্বাণু গঠনের জন্য প্রায় ৬ দিনের মত সময় লেগে যেতে পারে। এরপর নিষিক্ত ডিম্বাণু জরায়ুর আস্তরণে সম্পূর্ণরুপে বসতে আরো ৩ থেকে ৪ দিন সময় নিতে পারে। কিছু ক্ষেত্রে এর চেয়ে বেশি সময় লাগে। গর্ভবতী হওয়ার এই প্রক্রিয়ার সময় নির্ভর করে কখন সহবাস করা হচ্ছে, বা তাদের শারীরিক সক্ষমতাই কেমন ইত্যাদি বিষয়ের উপর।

সহবাসের কতদিন পর গর্ভধারণ হয়

সহবাসের পর পর-ই গর্ভধারণ প্রক্রিয়া শুরু হয়না, এটা প্রায় ৬ দিন সময় নেয় গর্ভধারণ করতে। 

কতদিন পর প্রেগন্যান্সি টেস্ট করতে হয়

সহবাসের ২১ দিন পর প্রেগন্যান্সি টেস্ট করলে, আপনি গর্ভবতী কিনা বুঝতে পারবেন। ২১ দিন পর টেস্ট করলে সঠিক রেজাল্ট পাওয়ার সম্ভবনা বেশি। আর আপনি যদি ২১ দিন অপেক্ষা করতে না চান, তাহলে সহবাসের ১ বা ২ সপ্তাহের পরও টেস্ট করতে পারেন। তবে এক্ষেত্রে প্রেগন্যান্ট হওয়ার সত্ত্বেও নেগেটিভ রেজাল্ট আসতে পারে। 

মিলনের কতদিন পর প্রেগন্যান্সি টেস্ট করতে হয়

মিলনের ২১ দিন পর প্রেগন্যান্সি টেস্ট করতে হয়, এক্ষেত্রে সঠিক ফলাফল পাওয়ার সম্ভবনা বেশি থাকবে।

কতদিন পর প্রেগনেন্সি টেস্ট করালে সঠিক ফলাফল পাওয়া যায়

সহবাস অর্থাৎ মিলনের প্রায় ২১ দিন পর প্রেগনেন্সি টেস্ট করলে সঠিক ফলাফল পাওয়া যায়, এমন সম্ভবনা সর্বাধিক। কিংবা গর্ভবতী হওয়ার প্রথম সপ্তাহের লক্ষণ সমূহ দেখা দিলে আপনি প্রেগনেন্সি টেস্ট করাতে পারেন।

সহবাসের কতদিন পর গর্ভবতী হয় এই সংক্রান্ত এই ভিডিও টি ও দেখতে পারেন

Spread the love

1 thought on “সহবাসের কতদিন পর গর্ভবতী হয় (বিশেষজ্ঞদের মতামত)”

Leave a Comment