ওয়েব ডিজাইন (২০২১ আপডেটেড গাইডলাইন)

ওয়েব ডিজাইন বা ওয়েব ডেভলপমেন্ট,  সময়ের সবচেয়ে চাহিদা সম্পন্ন ক্যারিয়ার গুলোর একটি।

করুন ফ্রিল্যান্সিং বা অফলাইন জব, আইটি লাইনের জন্য ওয়েব ডিজাইন এবং ওয়েব ডেভলপমেন্ট ক্যারিয়ার ট্রাক বড় জায়গা জুড়ে রয়েছে। 

ওয়েব ডিজাইন বা ডেভলপমেন্টের চাহিদা কেমন? আপনি-ই একটু ভাবুন!  ইন্টারনেটের এই দুনিয়ায় যাই দেখুন! হোক সেটা কোন ভিডিও অডিও,বা কোন ছবি। বা আপনি হয়তো পুরন করছেন কোন ফরম, করছেন চাকরির এপ্লাই। কি এগুলোই তো করেন? উত্তর যদি হয় হ্যা, তবে এখন প্রশ্ন – এসব কেন বললাম? কারন এসব সবই ওয়েবের এলিমেন্ট, আর এর পিছনের অবদান কিন্তু ওয়েব ডিজাইন আর এই ওয়েব ডেভলপমেন্টের।

এখন প্রশ্ন, ওয়েব ডিজাইন বা ওয়েব ডেভলপমেন্ট কি?

ওয়েব ডিজাইন কি

ওয়েব ডিজাইন কি বুঝতে আপনাকে প্রথমে বুঝতে তবে ওয়েবসাইট কি। ওয়েবসাইট হচ্ছে এক বা একাধিক পেজ/পাতা, যেখানে অনেক রকমের কন্টেন্ট থাকে।

কন্টেন্ট হিসেবে থাকতে পারে ইমেজ,ভিডিও, অডিও বা কোন টেক্সট,বা অনেক কিছুই । এই সব কিছু মিলে যদি কোন পেজ ইন্টারনেটে থাকে, এবং ইন্টারনেটের সাহায্যে যদি তা দেখতে পারেন, সেইটাই একটা ওয়েবসাইট।

একটা ওয়েবসাইটে একটা পেজ ও থাকতে পারে, আবার একাধিক পেজ ও থাকতে পারে।

আর এই ওয়েবসাইট ডিজাইনের কাজকেই বলে ওয়েব ডিজাইন। খেয়াল করে দেখুন, এখানে ওয়েবসাইট ডিজাইনের কথা বলা হয়েছে, তার মানে একজন ওয়েব ডিজাইনার মুলত ওয়েবসাইট এর কেমন দেখতে হবে, কিভাবে কোন কন্টেন্ট রিপ্রেজেন্ট করা হবে এগুলোই নির্ধারণ করেন।

ওয়েব ডিজাইন কাকে বলে

কোন ডিজাইনকে ওয়েবসাইটে কনভার্ট করার প্রক্রিয়াকেই ওয়েব ডিজাইন বলে।

ওয়েব ডেভলপমেন্ট কি

ওয়েব ডিজাইনের পরেও ওয়েবসাইট বিভিন্ন দিক থেকে অসম্পূর্ণ থাকে, উদাহরন হতে পারে একটি ফরম ডিজাইন করেছেন, কিন্তু ফরম পুরন করে সাবমিট করলে কি কাজ হবে ? হয়তো ডাটা কোথাও যাবে, বা কোন কিছু ডাউনলোড হবে – এগুলো আপনাকে করতে হবে ওয়েব ডেভলপমেন্ট দিয়ে।

যারা ওয়েবসাইটে এই ধরনের কাজ অর্থাৎ কোন কিছু ডাইনামিক করা,  ডেভলপ করা ইত্যাদি কাজ করে থাকেন, তাদের বলা হয় ওয়েব ডেভলপার।

ওয়েব ডিজাইন না ওয়েব ডেভলপমেন্ট দিয়ে ওয়েবের কাজ শেখা শুরু করা উচিত ?

ওয়েব ডিজাইন দিয়েই কাজ শেখা শুরু করা উচিত, যদি আপনি ওয়েবে ক্যারিয়ার ট্রাক গড়তে চান। হতে পারে আপনি ওয়েব ডেভলপার হতে চান, কিন্তু তারপর ও আপনাকে ওয়েব ডিজাইন দিয়ে শুরু করা উচিত। প্রশ্ন কেন ? 

কারন ওয়েব ডেভলপমেন্ট রিলেটেড কাজ করার সময় আপনাকে অবশ্যই ওয়েব ডিজাইনের অনেক জিনিস নিজেকে হ্যান্ডেল করতে হবে। ওয়েব ডিজাইন জানা থাকলে আপনি সহজেই এই বিষয়গুলো হ্যান্ডেল করতে পারবেন।

ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট

ওয়েব ডিজাইন এবং ডেভেলপমেন্ট সম্পর্কে জানার পর হয়তো আপনাদের অনেকেরই মনে হচ্ছে আমি যদি ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট দুটোই শিখি, সেক্ষেত্রে কেমন হবে? উত্তর হচ্ছে, হ্যা ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট দুটোই শিখলে আপনার জন্য কাজ পাওয়া সুবিধা হবে। কেননা এখন ক্লায়েন্টরা আর ওয়েব ডিজাইন একজন কে দিয়ে, আবার ডেভেলপমেন্ট আরেকজন কে দিয়ে করাতে চায়না। তাই ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট জানা ব্যাক্তিকেই ক্লায়েন্টরা পছন্দ করে। আর হ্যা একজন ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট জানা ব্যাক্তি কে ফুল স্ট্যাক ডেভলপার বলা হয়।

ওয়েব ডিজাইন ক্যারিয়ার

ওয়েব ডিজাইন হতে পারে সময় উপযুক্ত ক্যারিয়ার। বর্তমান যুগ ডিজিটালাইজেশনের ক্ষেত্রে ওয়েবসাইট যতটা গুরুত্বপূর্ণ, ততটাই ডিমান্ড একজন ওয়েব ডিজাইনারের।

কিভাবে ওয়েব ডিজাইন শিখব

ওয়েব ডিজাইন শেখা শুরু করতে চাইলে আপনাকে প্রথমেই এইচটিএমএল (HTML) নিয়ে কাজ করা শুরু করতে হবে। এইচটিএমএল (HTML) হচ্ছে একটি মার্কআপ ল্যাংগুয়েজ। এটা দিয়ে একটা ওয়েবসাইটের মার্কআপ তৈরি করতে পারবেন। মার্কআপ ল্যাংগুয়েজ শেখার পর-ই আপনার সিএসএস (CSS) শেখা শুরু করতে হবে । সিএসএস (CSS) দিয়ে আপনি আপনার করা এইচটিএমএল (HTML)  পেজ কে ডিজাইন করতে পারবেন, যেমন- কালার, মার্জিন, সাইজ ইত্যাদি।

এরপর এই ওয়েবপেজ কে আরো ইন্টারেক্টিভ করার জন্য ব্যবহার করতে হবে জাভাস্কিপ্ট, সেই জন্য আপনাকে ভ্যানিলা জাভাস্কিপ্ট শেখা শুরু করতে হবে। এরপর  ভ্যানিলা জাভাস্কিপ্ট শেখা শেষে কাজ গুলো সহজ করার জন্য আপনাকে শিখতে হবে জেকুয়ারি (জাভাস্কিপ্ট লাইব্রেরি)। 

কিভাবে-ওয়েব-ডিজাইন-শিখব

জেকুয়ারি শিখতে গেলে, এটা জাভাস্কিপ্ট এর চেয়ে অনেক সহজ লাগবে এবং এই সময় আপনি জেকুয়ারি প্লাগিন ব্যবহার শিখতে পারেন। এতে ইন্টারেক্টিভ বিভিন্ন কিছু ডিজাইন করা, বা তৈরি করার ক্ষেত্রে আপনার টাইম অনেক কম লাগবে, আর কনফিডেন্স ও পাবেন কাজ করার ক্ষেত্রে।

এরপর-ই আপনি বুটস্ট্রাপ শেখা শুরু করবেন, যেটা সিএসএস এর ফ্রেমওয়ার্ক গুলোর মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয়।

আমার মনে হয় এগুলো শিখতে শিখতে আপনি বুঝে যাবেন, আপনাকে নেক্সট কি করতে হবে বা কি শিখতে হবে।

ওয়েব ডিজাইন শিখতে কি কি লাগে

ওয়েব ডিজাইন শেখার জন্য আপনার কম্পিউটার বা ল্যাপটপ এর প্রয়োজন হবে। এছাড়া ব্যাসিক কম্পিউটার জানতে হবে, যেমন – ফোল্ডার/ফাইল তৈরি করা, ডিলেট করা। এসব থাকলে ওয়েব ডিজাইন শিখতে আপনার কম্পিউটারে কিছু সফটওয়ার ইন্সটল করতে হবে, যেমন – ইন্টারনেট ব্রাউজার, কোড ইডিটর। এগুলোর মাধ্যমেই আপনি ওয়েব ডিজাইন শেখা শুরু করতে পারবেন।

ওয়েব ডিজাইন কি কি শিখতে হয়

ওয়েব ডিজাইন এ HTML, CSS, JAVASCRIPT, JQUERY, BOOTSTRAP এগুলোই শিখতে হয়।

ওয়েব ডিজাইন কিভাবে করতে হয়

ওয়েব ডিজাইন করার জন্য, প্রথমেই আপনাকে একটা ডিজাইন বা টেমপ্লেট সাজিয়ে নিতে হবে, যেটাকে আপনি কোডে কনভার্ট করবেন। সেক্ষেত্রে আপনি গ্রাফিক ডিজাইনারের মাধ্যমে একটা পিএসডি ফাইল ডিজাইন করে নিতে পারেন। আর ক্লায়েন্টের কাজ করার ক্ষেত্রে ক্লায়েন্ট আপনাকে এরকম ডিজাইন দিয়ে ওয়েবসাইটে কনভার্ট করে দিতে বলবে। সাধারনত এইভাবেই ওয়েব ডিজাইন করা হয়।

ওয়েব ডিজাইন শেখার ওয়েবসাইট

ওয়েব ডিজাইন শেখার ওয়েবসাইট হিসেবে অনেক ওয়েবসাইট থাকলেও, এখানে আমি মোস্ট পপুলার এবং কার্যকারী ওয়েবসাইট ২টি শেয়ার করছি –

W3Schools

W3Programmers

ওয়েব ডিজাইন শিখতে কতদিন লাগে

ওয়েব ডিজাইন শিখতে কতদিন লাগে বা লাগবে, একদম সঠিকভাবে বলা সম্ভব না। কারন এটা অনেক কিছুর উপর নির্ভর করে, যেমন-আপনি প্রতিদিন কতটুকু সময় দিচ্ছেন, কতটুকু সময় নিচ্ছেন একটা টপিক শেখার ক্ষেত্রে ইত্যাদি। তবে মোটামুটি ৩ মাসের মধ্যে ওয়েব ডিজাইন ভালোভাবে শেখা সম্ভব।

ওয়েব ডিজাইন কোর্স

ওয়েব-ডিজাইন-কোর্স

ওয়েব ডিজাইন কোর্সের জন্য আপনি বিভিন্ন আইটি প্রতিষ্ঠানে খোঁজ নিয়ে আপনার পছন্দের প্রতিষ্ঠান থেকে ওয়েব ডিজাইন কোর্স করতে পারেন। প্রতিষ্ঠান রিকমেন্ডেশন এর ক্ষেত্রে , বাংলাদেশের স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠান ক্রিয়েটিভ আইটি ইনস্টিটিউট, শিখবে সবাই, কোডার্সট্রাস্ট বাংলাদেশ, ক্রিয়েটিভ শেপার এর অফিস ভিজিট করতে বলবো। যাদের ভাল লাগবে আপনি তাদের কাছ থেকে শিখতে পারেন।

ফ্রি ওয়েব ডিজাইন কোর্স

ফ্রি ওয়েব ডিজাইন কোর্সের জন্য আপনাকে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের অফারের দিকে চোখ রাখতে হবে। অনেক সময়-ই প্রতিষ্ঠান গুলো স্কলারশিপ, বা ১০০% ডিস্কাউন্ট অফার দিয়ে থাকে। এছাড়া আপনি ইউডিমি(UDEMY) তে ফ্রি ওয়েব ডিজাইন কোর্স পাবেন।

ওয়েব ডিজাইন টিউটোরিয়াল

ওয়েব ডিজাইন টিউটোরিয়ালের জন্য আপনি ইউটিউবের বিভিন্ন ওয়েব রিলেটেড চ্যানেল দেখতে পারেন। বাংলা এবং ইংরেজি অনেক টিউটোরিয়াল-ই এখন ইউটিউবে পাওয়া যায়, যেগুলো অনেকগুলোই ভালো কোয়ালিটি।

আপনি চাইলে আমার ব্যাক্তিগত চ্যানেল ও ফলো করতে পারেন –

ওয়েব ডিজাইন ফ্রিল্যান্সিং

ওয়েব ডিজাইন শেখার পর আপনি ফ্রিল্যান্সিং করতে পারবেন। প্রতিটি ফ্রিল্যান্সিং মার্কেটপ্লেসে ওয়েব ডিজাইন রিলেটেড প্রচুর কাজ রয়েছে। এছাড়া প্যাসিভ ইনকামের জন্য ওয়েব ডিজাইনের মাধ্যমে ওয়েব টেমপ্লেট রেডি করে আপনি থিমফরেস্টের মত মার্কেটপ্লেস গুলোতে আপনার ডিজাইন আপনি বিক্রি করতে পারবেন।

ওয়েব ডিজাইন আয়

ওয়েব ডিজাইন থেকে আপনি ফ্রিল্যান্সিং ছাড়াও আর অনেক মাধ্যমে আয় করতে পারবেন। যেমন- আপনি ডিজাইন সেল করা, লোকাল মার্কেটে এ কাজ করা, কিংবা প্রশিক্ষন দেয়ার মত পেশা থেকেও ওয়েব ডিজাইন আয় সম্ভব।

কিভাবে ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শিখব

ওয়েব ডিজাইনের মাধ্যমে কেবল পেজ গুলো ডিজাইন করা হয়ে থাকে। আর ওয়েব ডেভলপমেন্টের মাধ্যমে আপনি ডিজাইন করা পেজ গুলোকে ডাইনামিক করার কাজ গুলো করবেন।

ডাইনামিক করার জন্য আপনার অবশ্যই একটা প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ লাগবে। যেটি আপনার ওয়েব পেজ কে ডাইনামিক করার কাজটি করবে। কিন্তু ডাইনামিক করার জন্য শুধু প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ হলে চলবে না, লাগবে ডাটাবেজ। আমার নিজের অভিজ্ঞতায় বলবো ওয়েব ডেভলপমেন্টের জন্য প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ পিএইচপি ও ডাটাবেজের জন্য মাইএসকিউএল দিয়ে শুরু করা ভালো হবে।

প্রথমে কিছুদিন পিএইচপি দিয়ে ভেরিয়েবল ডিক্লেয়ার করা, ফাংশন, লুপ, কন্ডিশনাল ফাংশন গুলো নিয়ে কাজ করতে হবে, এরপর ক্রুড (CRUD) অপারেশন শিখতে হবে। তারপর ছোট খাটো প্রজেক্ট করলে দেখবেন ডেভলপমেন্ট নিয়ে ভালো লাগা শুরু হয়েছে। তখন আপনি ওয়েব ডেভলপমেন্ট নিয়ে স্টাডি করে পছন্দের ট্রাক চয়েজ করতে পারবেন।

ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শিখতে কত সময় লাগে

ওয়েব ডিজাইনের তুলনায় ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শিখতে একটু বেশি সময় লাগে। কেননা ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শেখার ক্ষেত্রে আপনাকে একটা প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ এবং একটি ডেটাবেজ ল্যাংগুয়েজ শিখতে হবে। এক্ষেত্রে প্রায় ৬ মাস থেকে ১ বছর সময় লাগতে পারে ওয়েব ডেভেলপমেন্ট শেখার ক্ষেত্রে।

ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট কোর্স

বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান থেকে ওয়েব ডিজাইন এন্ড ডেভেলপমেন্ট কোর্স বা ট্রেইনিং করতে পারেন। প্রতিষ্ঠান নির্ধারণের ক্ষেত্রে বাজেট + আপনার লোকেশন একটি ব্যপার। তবে আপনি অনলাইন কোর্স ও করতে পারেন। প্রতিষ্ঠান রিকমেন্ডেশন করতে বললে , বাংলাদেশের স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠান ক্রিয়েটিভ আইটি ইনস্টিটিউট, শিখবে সবাই, কোডার্সট্রাস্ট বাংলাদেশ, ক্রিয়েটিভ শেপার এর অফিস ভিজিট করতে বলবো। যাদের ভাল লাগবে আপনি তাদের কাছ থেকে শিখতে পারেন।

ব্যসিক ওয়েব ডিজাইন শেখার বই

ব্যসিক ওয়েব ডিজাইন শেখার জন্য বই কিনে নিয়ে শেখা শুরু করতে পারেন। বাংলা বই গুলোর মধ্যে নিচের বইটি দেখতে পারেন –
ওয়েব পেজ ডিজাইন (HTML) কম্পিউটারে হাতে খড়ি

এই ছিল আজ, আমি পরবর্তীতে ডেভেলপমেন্ট নিয়ে জানা বিষয়গুলো আলোচনা করার চেষ্টা করবো।

Spread the love

2 thoughts on “ওয়েব ডিজাইন (২০২১ আপডেটেড গাইডলাইন)”

  1. আমরা যারা ওয়েব ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট ক্যারিয়ার গড়তে চাই তাদের মধ্যে সব সময় একটি দ্বিধা কাজ করে কোনটি থেকে শুরু করব কিভাবে শুরু করব কনফিউশন কাজ করে পরা পড়ে এ সকল কনফিউশন দূর হয়ে গেল ধন্যবাদ আপনাকে আপনার লেখার হাত অনেক সুন্দর

    Reply

Leave a Comment